পরকীয়া মেলামেশার ভিডিও, ব্ল্যাকমেইল করে গৃহবধূকে গণধর্ষণ

বাংলাদেশ

পীরগঞ্জে এক গৃহবধূর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমিকের অনৈতিক সম্পর্কের অশ্লীল ভিডিও ধারণের হুমকি দিয়ে ব্ল্যাকমেইল করে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। ওই ঘটনায় গণধর্ষণে জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ পরকীয়া প্রেমিকসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার পাটগ্রাম গ্রাম থেকে ওই ৪ জনকে পুলিশ ধাওয়া করে গ্রেফতার করেছে। ধর্ষিতা গৃহবধূ বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। এ ঘটনায় রংপুর পুলিশের ডি সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. কামরুজ্জামান, থানার ওসি সরেস চন্দ্র ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

মামলা, এলাকাবাসী ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বড়আলমপুর ইউনিয়নে ওই গৃহবধূর সঙ্গে প্রতিবেশী খালেক মিয়ার ছেলে রনি মিয়া (১৯) পরকীয়ার সম্পর্ক গড়ে তোলে। ১২ দিন আগে ওই গৃহবধূর সঙ্গে রনি অনৈতিক সম্পর্ক করে।

ওই অনৈতিক সম্পর্কের ভিডিও দৃশ্য মোবাইলে ধারণ করা আছে মর্মে গ্রামের ৩ যুবক মকবুল মিয়ার ছেলে আখতারু (২৫), আজগার মিয়ার ছেলে মামুন মিয়া (২৬) এবং শাহ আলমের ছেলে আলামিন (২২) ওই গৃহবধূকে জানায়।

তারা ভিডিওটি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিয়ে গৃহবধূকে ব্ল্যাকমেইল করে। একপর্যায়ে বাধ্য হয়ে ওই গৃহবধূ উল্লেখিত ৩ যুবকের সঙ্গেও শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়। ঘটনাটি ফাঁস হলে থানা পর্যন্ত গড়ায়।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পরিদর্শক (তদন্ত) মাহবুবর রহমান বলেন, মামলার পরই ৪ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আর এটি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯/৩ ধারায় মামলা হয়েছে।

ওসি সরেস চন্দ্র বলেন, ওই গৃহবধূকেও আনা হয়েছে। তাকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য শুক্রবার রংপুরে প্রেরণ করা হবে। আসামিদের ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে তারা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছে।

এএসপি কামরুজ্জামান বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। মামলা রেকর্ডের সর্বোচ্চ কম সময়ে আমরা আসামি গ্রেফতারে সক্ষম হয়েছি।