ফরাসি প্রতিবিপ্লব ও মাখোঁর ‘মুসলিম’ সমস্যা

আন্তর্জাতিক

তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান ফরাসি প্রেসিডেন্ট মাখোঁর বক্তব্যের কড়া জবাব দিয়েছেন। এ থেকে নিজ নিজ দেশে লাভবান হচ্ছেন দুজনই।
তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান ফরাসি প্রেসিডেন্ট মাখোঁর বক্তব্যের কড়া জবাব দিয়েছেন। এ থেকে নিজ নিজ দেশে লাভবান হচ্ছেন দুজনই।

এএফপি ১৭৮৯ সালের ফরাসি বিপ্লবের মন্ত্র ছিল সাম্য, ভ্রাতৃত্ব ও স্বাধীনতা। ফ্রান্সে ভ্রাতৃত্ব শব্দ উচ্চারিত হলে এশিয়া–আফ্রিকার মুক্তিকামী জাতিগুলো থেকে প্রতিধ্বনি শোনা যেত…তৃত্ব তৃত্ব তৃত্ব। এখন আর তেমনটা শোনা যায় না। এখন শোনা যায় ঘৃণার বাণী।

প্যারিসে একটা দুঃখজনক ঘটনা ঘটেছে। এক ফরাসি স্কুলশিক্ষক এবং এক চেচেন পরিচয়ধারী যুবকের লাশ পাওয়া গেছে। ফরাসি পুলিশ বলছে, স্কুলশিক্ষককে গলা কেটে হত্যা করেছে ওই চেচেন যুবক। চেচেন যুবককে সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ গুলি করে হত্যা করায় তার ভাষ্য আর পাওয়ার উপায় নেই।

খেয়াল করার বিষয় আমেরিকার টুইন টাওয়ার, ফ্রান্সে ২০১৫ সালে ট্রাক চাপিয়ে হত্যা, শার্লি এবদো অ্যাটাক এবং এবারের শিক্ষক হত্যা—সবগুলোতেই হামলাকারীরা ঘটনাস্থলেই পুলিশের গুলিতে নিহত হন। ফলে তাদের জবানবন্দি পাওয়ার সুযোগ নেই। যাহোক, চেচেন যুবকটি মুসলিম।

আর স্যমুয়েল প্যাটি নামের ওই স্কুলশিক্ষক অবাধ বাক্‌স্বাধীনতায় বিশ্বাসী। তিনি তাঁর স্কুলের কোমলমতি শিশুদের কড়া ইসলামবিদ্বেষী রম্য পত্রিকা শার্লি এবদোয় ছাপা ইসলামের মহানবীর জন্য অবমাননাকর কিছু ছবি ক্লাসরুমে দেখিয়েছিলেন। এ নিয়ে মুসলিম বাচ্চাদের অভিভাবকেরা আপত্তি জানিয়েছিল।

চেচেন যুবক এই গল্পের ভেতর কীভাবে ঢুকে গেল তা স্পষ্ট না। কিন্তু তাকেই পাওয়া গেছে ফরাসি ওই স্কুলশিক্ষকের হত্যাকারী হিসেবে। ফরাসি গণমাধ্যমে ঘটনাটিকে একজন ব্যক্তির হত্যাকাণ্ডের ফৌজদারি অপরাধ হিসেবে দেখা হচ্ছে না। একে দেখা হচ্ছে মুসলমানদের অপরাধ হিসেবে।

এ ঘটনায় ফরাসি সমাজে তুমুল আলোড়ন জেগেছে। প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাখোঁ নিহত শিক্ষককে রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ সম্মানে ভূষিত করেছেন এবং ‘ইসলামি বিচ্ছিন্নতাবাদ’ (Islamic separatism)–এর বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন।

সংসদে ‘ইসলামি বিচ্ছিন্নতাবাদ’ বিরোধী নতুন আইনের বিল এনেছেন এবং ফরাসি ‘ইসলামের’ সংস্কারের প্রতিজ্ঞা জানিয়েছেন। কোনো ঘটনাই আকাশ থেকে পড়ে না। এর আগের কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ঘটনাবলি দেখা যাক।